বাবা

মোঃ মজিবর রহমান ২০ মার্চ ২০১৬, রবিবার, ০৫:০৬:৪৯অপরাহ্ন একান্ত অনুভূতি ১৯ মন্তব্য

কষ্ট দুঃখ বর্ণনা করা আমার সাধ্যে নেই। জন্মধাত্রী মা নিল বিদায় চলতে চলতে। খুব কষ্ট পেয়েছি মা যাওয়াতে,তবে ভাল লাগে মা কারো পানে না চেয়ে চলে গেল, কারো রঙ্গিন কাল মুখটি আমার গর্ভধারিণী মাকে দেখতে হয়নি। বাবা অসুস্থ , আমি সময় পেলেই যাই কিন্তু কাউকে তো জোর করে সেবা করায়ে নেওয়া যয় না। কারো মনে জোর করে আবেগ সৃষ্টি করাও যায় না। আমি যা ভাবি অন্য তা ভাবেনা, আমি যা উপলব্ধি করি অন্যে তা করে না।

গত বৃহস্পতিবার বাবাকে নিজ হাতে খাওয়াতে খাওয়াতে কেঁদে ফেলি। বাবা আমাকে ছোটবেলায় এভাবেই কোলে তুলে আদর করে বিভিন্ন কায়দায় খাইয়ে দিতেন। আমার কান্না বাবা টের পায় বল, তুমি কাঁদলে আমি কি করে থাকব? কি বলব বুঝতে পারি না! অনুভূতিও লোপ পায়। তাঁর স্বরণ শক্তি এখন প্রখর। কোমর থেকে তাঁর শরীরের কার্যকারিতা হারিয়েছে কিন্তু পায়ে তাঁর অনুভুতি আছে মোটামুটি। জীবিকার কারণে বাবার পাশে থাকা অসম্ভব হচ্ছে কি করব তাও বুঝতে পারিনা।

যে মা বাবা সন্তানের জন্য আদর, দোয়া, যত্ন দু’হাত তুলে করেছে। আজ  সন্তান কেন অবুঝ। বুঝতে চাইনা। হে আল্লাহ পৃথিবীর সকল সন্তান যেন তাঁদের বাবা মায়ের সেবা করতে পারে সেই মন মানসিকতা দাও। আমিন।

৬০০জন ৬০০জন
0 Shares

১৯টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন

লেখকের সর্বশেষ মন্তব্য

ফেইসবুকে সোনেলা ব্লগ